সেই দানবীর ভিক্ষুক নজিমকে প্রধানমন্ত্রীর উপহারের পাকাঘর হস্তান্তর

করোনার চিকিৎসা তহবিলে নিজের সর্বস্ব দান করা ভিক্ষুক নজিম উদ্দিনকে প্রধানমন্ত্রীর উপহারস্বরূপ পাকাবাড়ি বুঝিয়ে দেয়া হয়েছে।

রোববার সকালে শেরপুরের ঝিনাইগাতীতে বাড়ির চাবি হস্তান্তরের অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। জেলা প্রশাসক আনারকলি মাহবুব নতুন বাড়ির চাবি ও একটি দোকান ঘর মালামালসহ হস্তান্তর করেন।

এর আগে, করোনা দুর্যোগ মোকাবেলায় গঠিত তহবিলে নিজের সঞ্চিত সকল অর্থ দান করে দেশজুড়ে আলোচনার জন্ম দিয়েছিলেন হতদরিদ্র নজিম উদ্দিন। ভিক্ষাবৃত্তি করে জীবন চালানো শেরপুরের ঝিনাইগাতী উপজেলার গান্দিগাও গ্রামের এই বৃদ্ধ দুই টাকা, পাঁচ টাকা দিয়ে তিনবছর ধরে তিলে তিলে জমিয়েছেন দশ হাজার টাকা। ইচ্ছে ছিল কুড়ে ঘরটি সংস্কার করবেন। কিন্তু পরের তরে সেই ইচ্ছের জলাঞ্জলি দিলেন। শীর্ণ দেহের মানুষটির এই মহানুভবতার গল্প পৌঁছে যায় প্রধানমন্ত্রীর কাছেও।

এ ঘটনা জানতে পেরে নজিম উদ্দিনের প্রশংসা করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বলেন, সারাবিশ্বে মহৎ দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন নজিম উদ্দিন। এমন মানবিক গুণ বিত্তশালীদের মাঝেও দেখা যায় না। একজন নিঃস্ব মানুষ যার কাছে টাকাটা গুরুত্বপূর্ণ। যিনি ওই টাকা দিয়ে জামা কাপড় কিনতে পারতেন, খাবার কিনতে পারতেন। এ অবস্থায় ঘুরে ঘুরে ভিক্ষা পাওয়াও মুশকিল। তারপরও তিনি কোনো চিন্তা করেননি। শেষ সম্বলটুকু দান করেছেন। নজিম উদ্দিন যে দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন, তার কাছে আমাদের অনেক অনেক শেখার আছে।

এরপর প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে নজিম উদ্দিনকে বাড়ি করে দেয়ার উদ্যোগ নেয়া হয়। তার চিকিৎসা ভারের পাশাপাশি জীবিকা নির্বাহের জন্য দোকান করে দেয়ার কথা জানানো হয় সরকারের তরফ থেকে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *