বিহারে অভাবিত সাফল্য মুসলিম নেতা ওয়াইসির, এবার টার্গেট পশ্চিমবঙ্গ

ভারতের বিহার রাজ্যে বিধানসভার ভোটের ফলাফলে উদীয়মান মুসলিম নেতা আসাদউদ্দিন ওয়াইসির দল মজলিস-ই-ইত্তেহাদুল মুসলিমিন এককভাবে পাঁচটি আসনে জয় লাভ করে।  

ভারতীয় গণমাধ্যমগুলো জানায়, বিহারে এই প্রথমবারের মতো ভোটে লড়ে মজলিস-ই-ইত্তেহাদুল মুসলিমিন। মুসলিম-অধ্যুষিত সীমান্তঞ্চল ও আশপাশে ২০টি আসনে প্রার্থী দিয়ে পাঁচটিই জিতে নিয়েছে ওয়াইসির দল।
বর্তমানে মহারাষ্ট্র থেকেও তাদের নির্বাচিত এমপি ও এমএলএ রয়েছে। আসাদউদ্দিন ওয়াইসির পরবর্তী টার্গেট পশ্চিমবঙ্গ। ছয় মাস পর পশ্চিমবাংলায় বিধানসভার ভোট।
দলের এই সাফল্যে ওয়াইসি বলেন, ‘এটা আমাদের দলের জন্য খুব ভালো দিন। বিহারের মানুষ ভোট দিয়ে আমাদের দোয়া করেছেন। তাদের কীভাবে ধন্যবাদ দেব জানি না।’
দলের ভবিষ্যৎ কর্মপন্থা কী হবে তার ব্যাখ্যা দিতে গিয়ে তিনি বলেন, ‘আমরা মানুষের কাজ করব। বিহারের বন্যাপীড়িত এলাকার দিকে নজর দেব।’ তবে আরও আসন কেন জেতা গেল না তা নিয়ে দলের মধ্যে কাটাছেঁড়া হবে বলেও জানিয়েছেন তিনি।
তিন তালাক রদ করার বিরোধিতা থেকে শুরু করে বাবরি মসজিদ ভাঙার ইস্যু বা নাগরিকত্ব আইন নিয়ে ওয়াইসি যেভাবে সরব হয়েছেন, তাতে ভারতীয় মুসলিম সমাজের একটা বড় অংশ তাকে সেদেশে মুসলিমদের ‘নতুন নেতার’ ভূমিকায় দেখতে শুরু করছেন।
 ৯৩ বছরের পুরনো রাজনৈতিক দল মজলিস-ই-ইত্তেহাদুল মুসলিমিনের প্রভাব মাত্র বছরকয়েক আগেও হায়দ্রাবাদ শহরের গণ্ডির মধ্যেই সীমাবদ্ধ ছিল। এদিকে বিহারের নির্বাচনে অভাবিত সাফল্য পাওয়ার পর আসাদউদ্দিন ওয়াইসির বিরুদ্ধে আবার বিজেপিকে সুবিধা করে দেওয়ার অভিযোগ তোলা হচ্ছে।

কংগ্রেসের নেতারা সরাসরি বলছেন, ওয়াইসির দল মুসলিম ভোট কেটেছে বলেই বিজেপি জোট বিহারে আবার ক্ষমতায় আসতে পারলো।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *