দয়ামীর কাজী বাড়িতে সন্ত্রাসী হামলা লুটপাট

ওসমানীনগর থানার ৭ নং দয়ামীর ইউপি দয়ামীর জালালপাড়া ( কাজী বাড়ি) ‘র  সন্ত্রাসী হামলা, ভূমি জুরজবরদস্তি দখলের পায়তারা করে আসছে দয়ামীর রাইকদাড়া গ্রামের কিছু প্রভাবশালী বখাটে কুচক্রী মহল। 

ছবিঃ হাতুড়ি লাটি নিয়ে হামলা

গতকাল ১২ ডিসেম্বর  আনুমানিক সকাল ৮ ঘটিকায় দয়ামীর কাজী বাড়ীতে পরিকল্পিতভাবে রাইকদাড়া গ্রামের লোকমান, সাদ্দাম, হান্নান, মন্নান, এমদাদ, সাহেল, শাহান, নজির, কামরুল, শামীম প্রমূখ সহ প্রায় শতাধিক সন্ত্রাসীরা হামলা করে। এ সময় বাড়ির লোকেরা বাধা দিলে সন্ত্রাসীরা আরও ক্ষিপ্ত হয়ে তাদের উপর আক্রমণ করে এবং আরও লোকজন জমা করে লাঠিসোটাসহ দেশীয় অস্ত্র দিয়ে বাড়ির প্রধান গেইট ভেঙে তুলে নিয়ে যায়। তারপর বাড়ির পানি যাওয়ার পথ ভেঙে ফেলে এবং তাদের পঞ্চায়েতের শালিসি ব্যক্তিত্ব সোহেল মিয়ার নির্দেশে বাড়ির ভিটা দখলের জন্য মাটি ভরাট করে। পরে চিৎকার চেচামেচি শোনে আশেপাশের লোকজন জমা হয়ে প্রশাসনকে অবগত করেন। প্রশাসন আসার সাথে সাথে ঘটনাস্থল থেকে পলায়ন করে সন্ত্রাসীরা।

ভূমি দখল নিয়ে বিরোধের জের ধরে এর আগে ওহ দয়ামীর কাজী বাড়িতে সন্ত্রাসী হামলার পায়তারা করেছে রাইকদাড়া গ্রামের একদল সন্ত্রাসী বাহিনী। ওই ঘটনায় কাজী পরিবার থানায় অভিযোগ দেয়ায় প্রশাসনের কর্মকর্তা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। এ ঘটনায় কাজী পরিবারের সদস্যদের প্রাণনাশের হুমকিও দিয়েছে কুচক্রী মহলের পেটোয়া বাহিনী।

অভিযোগ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, একদল সন্ত্রাসী দেশীয় অস্ত্রসহ হামলা চালিয়ে কাজী বাড়িতে বাড়ির মেইন ফটক ভেঙে তুলে নিয়ে যায় এবং ভূমি দখলের জন্য জমি ভরাট করে। এদিকে, থানায় অভিযোগ দেওয়ায় আসামিরা ক্ষিপ্ত হয়ে ফের হুমকি দেয়।

ভাংচুর করার মূহুর্তে স্বাধীন দেশে পেশাদারিত্বের সঙ্গে কাজ করার ক্ষেত্রে এ ধরনের ঘটনা প্রতিবন্ধকতা তৈরি করবে। তাই প্রশাসন ও স্হানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিদের সুদৃষ্টি কাম্য যাতে অনতিবিলম্বে দোষীদের আইনের আওতায় এনে নিরীহ এই কাজী পরিবারের লোকদের পৈতৃক ভিটা রক্ষায় সহায়তা করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *